কেমন হবে আপনার খাবারের প্লেট? কতটুকু থাকবে ভাত,সবজি,ফল ও মাছ?

খাবারের সময় আপনার প্লেটে কি সব খাদ্য গ্রুপ থেকে খাবার রাখা হয়? না রাখা হলে কতটুকু
রাখা উচিত, তা কখনো ভেবে দেখেছেন কি? আমরা অনেকেই হয়তো জানি না আমাদের খাবারের
প্লেটে কি কি খাবার থাকা উচিত এবং কতটুকু থাকা উচিত।
সহজভাবে বোঝানোর জন্য একটি খাবারের প্লেটকে আদর্শ ধরে তার মধ্যে খাদ্য গ্রুপগুলোকে
ভাগ করে দেওয়া হয়। একটি সাধারন খাদ্য প্লেটে বিভিন্ন খাদ্যগোষ্ঠীর সঠিক অনুপাত দৃশ্যত
উপস্থাপন করে স্বাস্হ্যকর ও সুষম খাবার কেমন হবে তা একটি স্বাস্থ্যকর খাবারের প্লেট
থেকে বোঝা যায়। স্বাস্থ্যকর খাবারের প্লেট এর প্রধান বার্তাই হচ্ছে ডায়েটের মানের উপর
লক্ষ্য রাখা। সঠিক পরিমানে নেওয়া এই পুষ্টি উপাদানগুলো শরীরের কাজ করার ক্ষমতাকে
স্বাভাবিক রাখে।


খাবারের প্লেটটি প্রতিটা খাদ্য বিভাগ থেকে ক্যালরি অথবা ১ খাদ্য পরিবেশনকে নির্দেশ করে না
কারন প্রত্যেকের ক্যালরি চাহিদা লিঙ্গ,বয়স, কার্যকলাপ স্তর আলাদা। সাধারনত খাবারের
প্লেট ছোট শিশুদের জন্য ৭ ইঞ্চি এবং বড়দের জন্য ৯ ইঞ্চি রাখা হয়।

প্রথমে জেনে নেওয়া যাক,স্বাস্থ্যকর খাবারের প্লেটকে কয় ভাগে ভাগ করা হয়।একটি প্লেটকে ৪
টা ভাগে ভাগ করা হয় নিচের ছবিটির মতো। শস্য,প্রোটিন, সবজি ও ফল দিয়ে প্লেটটা কে পূর্ণ
করা হয়।

খাবারের প্লেটের ১/৪ অংশে পূর্ণ শস্য থাকবে। পূর্ণ শস্য যেমনঃ ওটস,বার্লি, লাল চালের
আটা,লাল চালের ভাত অথবা এগুলো দিয়ে তৈরিকৃত খাবার থাকবে।
খাবারের প্লেটের ১/৪ অংশে থাকবে প্রোটিনজাতীয় খাবার। যেমন- মাছ,মাংস,ডিম,বাদাম ইত্যাদি ।

তবে লাল মাংস ও প্রক্রিয়াজাতকৃত মাংস যেমন- বেকন,সসেজ কম খাওয়া বা একেবারেই বাদ দেওয়া ভালো। খাবারের প্লেটের অর্ধেক অংশে থাকবে শাক-সবজি ও ফলমূলঅর্থাৎ ১/৪ অংশ করে সবজি ও ফল রাখা হয়এক্ষেত্রে বিভিন্ন ধরনের সবজি এবং বিভিন্ন রঙের ফল নির্বাচন করা উচিত ক্যালসিয়ামের চাহিদা পূরনের জন্য সাথে দুধ বা দুগ্ধজাতীয় খাবার খেতে হবে। এছাড়া ভেজিটেবল তেল যেমনঃ অলিভ অয়েল, সূর্যমুখীর তেল,ভূট্টার তেল ইত্যাদি ব্যবহার করা ভালো এবং হাইড্রোজেনেটেড তেল বাদ দেওয়া উচিত কারন এগুলোতে অস্বাস্থ্যকর ট্রান্স ফ্যাট থাকে  চিনিজাতীয় পানীয়ের বদলে প্রচুর পরিমানে পানি খেতে হবেআপনার খাবারের প্লেটটি সাজিয়ে নিলে সব খাদ্য গ্রুপ থেকে খাদ্য চাহিদা পূরন হয়ে যায়স্বাস্থ্যকর খাবারের প্লেট ব্যবহার করে প্রতিদিন সুষম খাবার গ্রহন করে পর্যাপ্ত পুষ্টি নিশ্চিত করুন,সুস্থ থাকুন। 

লেখা-জান্নাতুল তাবাসসুম, খাদ্য পুষ্টিবিজ্ঞান

সম্পাদনা- আল আসমাউল হুসনা, খাদ্য পুষ্টিবিজ্ঞান

1,209 total views, 8 views today

Any opinion ..?

Posted by pushtibarta

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *